রাম মন্দির নির্মাণে অযোধ্যায় ইট নিয়ে হাজির মুসলিম করসেবকরা।

রাম মন্দির নির্মাণে অযোধ্যায় ইট নিয়ে হাজির মুসলিম করসেবকরা।

1492764494813

 অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণ নিয়ে চাপানউতোরের মধ্যেই ফের নয়া বিতর্কের সৃষ্টি। রাম মন্দিরের সমর্থনকারী সংখ্যালঘু মুসলিমরাও এবার আসরে। শুক্রবার মুসলিম করসেবক মঞ্চের সদস্যরা ইটবোঝাই ট্রাক নিয়ে হাজির হন অযোধ্যায়। রাম মন্দির নির্মাণ অভিযানের প্রথম ধাপে তাঁরা এই ইট নিয়ে অযোধ্যায় পা রাখলেন। সূত্রের খবর, গোটা দেশের মুসলিম সমাজের কাছে এই করসেবকরা রাম মন্দির নির্মাণের জন্য ইট সরবরাহের জন্য আবেদন জানিয়েছিল। সেই ইট নিয়েই তাঁরা অযোধ্যায় এসে হাজির হন। এই ঘটনার জেরে ফের অগ্নিগর্ভ পরিস্থিতির সৃষ্টি হতে পারে স্থানীয় পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে। কিন্তু পরিবেশ উত্তপ্ত যাতে না হয় তাই সেদিকে নজর রেখেছ উত্তরপ্রদেশ পুলিশ।

সম্প্রতি, লখনউয়ের শ্রী রাম মন্দির নির্মাণ মুসলিম করসেবক মঞ্চের সভাপতি আজম খান, রাম মন্দির বানানোর দাবিতে শহরের রাস্তায় ১০টি হোর্ডিং টাঙিয়েছিলেন৷ যদিও এমন সাহসী পদক্ষেপ নেওয়ায় নিরাপত্তা নিয়ে চিন্তায় রয়েছেন তিনি৷ তাই নিরাপত্তার জন্য পুলিশের সাহায্যও চেয়েছেন তিনি বলে জানা গিয়েছে৷ রাম জন্মভূমি বিষয়টি স্পর্শকাতর৷ তাই পারস্পরিক আলোচনার মাধ্যমেই প্রায় আড়াই দশক পুরনো রাম জন্মভূমি বিতর্কের সমাধান হোক৷ শীর্ষ আদালতের তরফে এমন পরামর্শই দেওয়া হয়েছিল৷ যদি আলোচনার মাধ্যমে সমস্যার সমাধান না হয় শুধুমাত্র তখনই আদালত এই ব্যাপারে হস্তক্ষেপ করবে৷ এমনটাই জানিয়ে দিয়েছিল প্রধান বিচারপতি খেহরের নেতৃত্বাধীন ডিভিশন বেঞ্চ৷ এই পরামর্শের সৌজন্যেই নতুন করে খবরের শিরোনামে উঠে আসে অযোধ্যা বিতর্ক৷ সুপ্রিম কোর্টের সেই পরামর্শকেই এবার হাতিয়ার করে আজম খান তাঁর সম্প্রদায়ের মানুষকে সম্প্রীতির পথে হাঁটার কথা বলেছেন৷ সেই কথা রেখেই মুসলিম করসেবক মঞ্চের সদস্যরা এদিন অযোধ্যায় রাম মন্দির নির্মাণের জন্য ইট নিয়ে উপস্থিত হন।

হিন্দু নববার্তা ২১.০৪.২০১৭.

Advertisements

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s